Sunday, August 7বাংলারবার্তা২১-banglarbarta21
Shadow

কনটেন্ট লেখা

পদ্মা সেতু বাঙালি জাতিকে অপমান করার প্রতিশোধ,অহংকার এবং গৌরবের প্রতীক

পদ্মা সেতু বাঙালি জাতিকে অপমান করার প্রতিশোধ,অহংকার এবং গৌরবের প্রতীক

Blog, অনলাইন নিউজ, কনটেন্ট লেখা, জাতীয়
দেশি-বিদেশি সব ষড়যন্ত্রের জাল ছিন্ন করে বাঙালি জাতির স্বপ্ন এখন বাস্তব। ২০১৩ সালের জানুয়ারিতে বাংলাদেশের সবচেয়ে বড় অবকাঠামো পদ্মা সেতুতে দুর্নীতির অজুহাতে অর্থায়ন থেকে যখন সরে দাঁড়ায় বিশ্বব্যাংক, তখনই প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সুদূরপ্রসারী চিন্তা-চেতনায় নিজস্ব অর্থায়নে পদ্মা সেতু করার সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়। অতঃপর বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সিঁড়িতে পা রেখে দুর্বার গতিতে পদ্মা সেতু উন্নয়নের কাজ ধরেন বঙ্গবন্ধুকন্যা। তাই পদ্মা সেতু বাঙালি জাতিকে অপমান করার প্রতিশোধ, বাঙালিদের আবেগ, অহংকার এবং গৌরবের প্রতীক। বিজ্ঞাপন এটি আমাদের সামর্থ্য, সাহস ও সক্ষমতার প্রতীক। আমাদের অর্থনৈতিক মুক্তির সংগ্রামের এক উজ্জ্বল মাইলফলক। এটি বঙ্গবন্ধুকন্যার প্রত্যয়, দৃঢ় মনোবল, আস্থা, সততা, আত্মবিশ্বাস ও অসম সাহসের সোনালি ফসল। অবহেলিত দক্ষিণ বাংলার নতুন সম্ভাবনা, নতুন দিগন্ত, কৃষি, শিল্প, অর্থনীতি, শিক্ষা, বাণিজ্য—সব ক্ষেত্
করোনার আগে বৈশ্বিক সবছেয়ে বড় মহামারির নাম ছিল স্প্যানিশ ইনফ্লুয়েঞ্জা মৃত্যুের সংখ্যা ছিল প্রায় ৫ কোটি

করোনার আগে বৈশ্বিক সবছেয়ে বড় মহামারির নাম ছিল স্প্যানিশ ইনফ্লুয়েঞ্জা মৃত্যুের সংখ্যা ছিল প্রায় ৫ কোটি

অনলাইন নিউজ, অনুসন্ধানী, কনটেন্ট লেখা, বিশ্ব সংবাদ
অনলাইন বার্তা: করোনার আগে বৈশ্বিক সবছেয়ে বড় মহামারির নাম ছিল স্প্যানিশ ইনফ্লুয়েঞ্জা ১৯১৮ সালের শেষের দিকে ভয়ঙ্কর এক মহামারি সারা বিশ্বকে কাঁপিয়ে দিয়েছিল। বিশ্ব মানব ইতিহাসের সবচেয়ে প্রাণঘাতী এই ফ্লুতে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যু হয়েছিল পাঁচ কোটিরও বেশি মানুষের। এই সংখ্যা প্রথম বিশ্বযুদ্ধে নিহত মানুষের সংখ্যার চাইতেও বেশি। সেসময় সারা বিশ্বের মোট জনসংখ্যার এক চতুর্থাংশেরই মৃত্যু হয়েছিল এই ভাইরাসে। এটি যখন ছড়ালো প্রথম বিশ্বযুদ্ধ তখন প্রায় শেষ হয়ে আসার পথে। যুদ্ধ শেষে সৈন্যরা ফিরে যাচ্ছে যার যার দেশে। কিন্তু তারা কল্পনাও করতে পারেনি যে বাড়িতে তাদের জন্য অপেক্ষা করছিল নতুন এক শত্রু। বিবিসির একজন ব্রডকাস্টার অ্যালেস্টার কুক, যিনি 'লেটার ফ্রম আমেরিকা' অনুষ্ঠানের জন্যে বিখ্যাত হয়েছিলেন, তিনিও শৈশবে এই স্প্যানিশ ফ্লুতে আক্রান্ত হয়েছিলেন। পরে তিনি সেই অভিজ্ঞতার কথা ২০০৪ সালে ব
সাংবাদিক আরিফুল ইসলামকে শাস্থির ঘটনায় কুড়িগ্রামের ডিসি প্রত্যাহার

সাংবাদিক আরিফুল ইসলামকে শাস্থির ঘটনায় কুড়িগ্রামের ডিসি প্রত্যাহার

অনলাইন নিউজ, কনটেন্ট লেখা, সমগ্র বাংলাদেশ
বার্তা ডেস্ক: আমরা ভুলে যাই আমাদের দায়িত্ববোধকে। নিজেদের ক্ষমতাকে অন্যের উপর ঝাড়তে নেই। আর এইরকম এক অপ্রত্যাশিত ক্ষমতাকে ব্যবহার করে কুড়িগ্রাম জেলা প্রশাসক মোছা. সুলতানা পারভীন প্রত্যাশিতভাবেই প্রত্যাহার হচ্ছেন। জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী সংবাদমাধ্যমকে জানিয়েছেন, মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের নির্দেশে রংপুর বিভাগীয় কমিশনার দপ্তরের তদন্তে তার বিরুদ্ধে ‘বেশ কিছু অনিয়মের’ অভিযোগ প্রাথমিকভাবে প্রমাণিত হয়েছে। প্রত্যাহারের পথ ধরে চূড়ান্ত শাস্তিও হচ্ছে, আশা করা যায়। তিনি কুড়িগ্রামে ধরাকে সরা জ্ঞান করেছিলেন। নিজেকে কুড়িগ্রামের মহারানী ভেবেছিলেন, কুড়িগ্রামের সন্তান সাংবাদিক আরিফুল ইসলাম রিগানকে তার প্রজা ভেবেছিলেন। ভুলে গিয়েছিলেন, কুড়িগ্রামের মানুষ তার প্রজা নয়, বরং তাকে নিয়োগদাতা প্রজাতন্ত্রের মালিক। আরিফুল ইতোমধ্যে জামিনে বেরিয়ে এসেছেন, কুড়িগ্রাম থেকে সুলতানাকেই তল্পিতল্পা গুটিয়ে চলে যেতে হচ্ছে।
যেটা তুমি চাও সেটা হাসিল করাটাই হল সাফল্য

যেটা তুমি চাও সেটা হাসিল করাটাই হল সাফল্য

Entertainment, LifeStyle, Technology, কনটেন্ট লেখা
বার্তা প্রতিনিধি: একজন সফল উদ্যক্তার সফল গল্পে ডেলকার্নেগী সাফল্য এবং আনন্দের সংজ্ঞা দিতে গিয়ে :-) বলেছেন, ''যেটা তুমি চাও সেটা হাসিল করাটাই হল সাফল্য। আর আনন্দ হল তুমি যা চাও তা পাওয়া।'' প্রত্যেক সুখী মানুষই সফল কিন্তু প্রত্যেক সফল মানুষই সুখী না। যেটা তুমি চাও সেটা হাসিল করতে না পেরেও ভালো থাকতে পারাটাই হল সুখ। আপনার সুখ সাফল্যের উপর না, নির্ভর করছে জীবনকে দেখার দৃষ্টিভঙ্গির উপরে। দৃষ্টিভঙ্গি দু ধরনের। প্রো-একটিভ এবং রি- একটিভ। সোজা ভাষায় বলতে গেলে একটা গ্লাসে অর্ধেক গ্লাস পানি থাকলে সেখানে 'অর্ধেক গ্লাস পানি নেই' চিন্তা করাটা রিএকটিভ আর ' অর্ধেক গ্লাস পানি আছে' চিন্তা করাটা প্রো-একটিভ। যে জিনিসটাকে আপনার দুর্বল দিক মনে হচ্ছে আপনি চাইলেই সে জিনিসটা শক্তিতে রূপ নেবে। একটা উদাহারণ দেই... অত্যন্ত দরিদ্র এবং রোগে শোকে মৃত্যুশয্যায় থাকা একটা মানুষ কতটা অসহায় হতে পারে সেটা আমরা জানি।